মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ০৩:৪১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতাল রোগীদের সাথে ঈদের আনন্দ উপভোগ করলেন পৌর মেয়র সৌদি আরবের সঙ্গে মিল রেখে লক্ষ্মীপুরে ১১ গ্রামে ঈদুল আযহা উদযাপন লক্ষ্মীপুর ৪ রামগতি-কমলনগরের রাজনীতিক নেতারা কে কোথায় ঈদ করবেন! ছাত্রলীগ নেতা সজীব হত্যার আসামিদের গ্রেপ্তারের দাবীতে বিক্ষোভ সমাবেশ কমলনগরে লরেন্স ইউনিয়নের প্যানেল চেয়ারম্যান আবদুল খালেক লক্ষ্মীপুরে ট্রাকচাপায় বাইসাইকেল আরোহী নিহত চর রমনী ইউনিয়ন ব্যবসায়ীর ২ লক্ষ টাকা ছিনতাই এর অভিযোগ যুবলীগ নেতা কামরুল সরকারগংদের বিরুদ্ধে  ঋণের বেড়াজালে পড়ে কমলনগরে ব্যবসায়ির আত্মহত্যা কমলনগরে স্হানীয় সম্পদ আহরণ-বাজেট বিষয়ক প্রশিক্ষণসভা লক্ষ্মীপুর পৌরসভায় ভিজিএফএর চাল পেল ৫ হাজার অসহায় পরিবার

 তুচ্ছ ঘটনায় দাদাকে পিটিয়ে আহত করলেন হাফেজ নাতী

সংবাদ দাতার নাম
  • প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ২২ ডিসেম্বর, ২০২৩
  • ৪১ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিনিধি: লক্ষ্মীপুরে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দাদা নুর ইসলাম ও দাদী চম্পা খাতুনকে পিটিয়ে আহত করেছে মাদ্রাসা পড়ুয়া হাফেজ নাতী দিদার আলম। বুধবার সকালে ২০ ডিসেম্বর ২০২৩ ইং তারিখে সদর উপজেলার চর রুহিতা এলাকার ৮ নং ওয়ার্ডে বশির উল্যাহ্ হাজী বাড়ীতে এ ঘটনা ঘটে। দিদার একই ইউনিয়নের আবুল বাশার তাহের ও মা নুর জাহান এর ছেলে।
এদিকে দিদার তার দাদার অর্থসম্পদে স্থানীয় মাদ্রাসায় লেখা-পড়া করে হাফেজ হন বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা। তাদের দাবী প্রকাশে হাফেজ দিদার তার দাদী চম্পা খাতুনকে ও দাদা নুর ইসলামকে কানে গালে চৌয়ার থাপ্পরসহ মারধরনের বিষয়টি মেনে নিতে মারেন নাই স্থানীয়রা।
এ ঘটনায় বিচার চেয়ে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদে হাফেজ দিদারের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছেন তারা। অপ্রত্যাশিত ঘটনাটি আগামী শুক্রবার মিমংসা করা হবে জানিয়েছেন জনপ্রতিনিধিসহ হাফেজ দিদার বাবা আবুল বাশার।
স্থানীয়দের দায়েরকৃত অভিযোগে জানা গেছে, জেলার সদর উপজেলার চর রুহিতা এলাকার ৮ নং ওয়ার্ডে বশির উল্যাহ্ হাজী বাড়ীতে তুচ্ছ ঘটনায় আদরের হাফেজ নাতী দিদারের মারধরে আহত হন দাদা ও দাদী । পরে তাদেরকে অশ্লীল ও অসভ্য ভাষায় গালিগালাজ করে সে। অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করতে নিষেধ করলে দাদা নুর ইসলামকে প্রথমে পরে দাদী চম্পা খাতুনকে বাড়ীর উঠানে ফেলে কিল-ঘুষি মেরে রক্তাক্ত করে গুরুতর আহত করেন এবং প্রাননাশের হুমকি ধামকি দেন দিদার হাফেজ।
এসময় স্থানীয়রা এসে নুর ইসলাম ও চম্পা খাতুনকে উদ্ধার করে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা প্রদান করেন। পরে তারা ৯৯৯ নম্বরে অভিযোগ করে পরে স্থানীয়ভাবে ইউনিয়ন পরিষদে অভিযোগ করেন। আহত ৬০ বছরের চম্পা খাতুন জানান, এ ধরনের ঘটনা যাতে পরবর্তীতে এলাকায় কেউ যাতে তাদের নাতী ও সন্তানদের হাতে লাঞ্চিত ও মারধরে নাজেহাল না হন এজন্য আমি গ্রাম্য বৈঠকের আশ্রয় নিয়েছি। এ ঘটনার সুষ্ঠ বিচার দাবি করছি।
এ বিষয়ে হাফেজ দিদারের পিতা আবুল বাশার বলেন, হাফেজ দিদার তার ছেলে। দিদার হাফেজ হয়ে তার পিতা ও মাতাকে এভাবে মারধর করবে তা ভেবে উঠতে পারেন নাই তিনি। তার বাবা ও মাকে সম্মান না দেওয়ায় তিনি তার সন্তানকে দিদারকে দুই এক থাপ্পড় মেরে শাসন করেছেন বলে জানায় এ হতভাগা হাফেজ এর বাবা ।
স্থানীয়রা মাতাব্বরা জানান, তুচ্ছ ঘটনায় দাদী ও দাদাকে একজন হাফেজ কর্তৃক মারধরের বিষয়টি এখতিয়ার বহির্ভূত। এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেয়া হবে।
তবে অভিযোগের বিষয়ে আইনগত কোনো ব্যবস্থা নেয়া হবে কিনা জানতে স্থানীয় চর রুহিতা ইউপি চেয়ারম্যান হুমায়ন কবির পাটোয়ারীকে বার বার ফোন দেয়া হলেও তিনি রিসিভি করেননি।

সংবাদ টি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ

আজকের নামাজের সময়সুচী

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৩:৪৬ পূর্বাহ্ণ
  • ১২:০২ অপরাহ্ণ
  • ১৬:৩৮ অপরাহ্ণ
  • ১৮:৫১ অপরাহ্ণ
  • ২০:১৭ অপরাহ্ণ
  • ৫:১০ পূর্বাহ্ণ
কপিরাইট © ২০২৩সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
themesba-lates1749691102